চট্টগ্রামে মাদ্রাসাছাত্রী গণধর্ষণ মামলার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

83

স্টাফ রিপোর্টার: ছবি: যুগান্তরচট্টগ্রামের কোতোয়ালিতে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ সাহাবুদ্দিন নামে গণধর্ষণ মামলার এক আসামি নিহত হয়েছেন। এ সময় শ্যামল দে নামে আরেক আসামিকেও গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
পুলিশের দাবি, নিহত সাহাবুদ্দিন এক তরুণী গণধর্ষণ মামলার আসামি। গ্রেফতারকৃত ব্যক্তির বিরুদ্ধেও একই অভিযোগ রয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে দুটি প্রাইভেটকার জব্দ করা হয়।
মঙ্গলবার ভোরে নগরীর কোতোয়ালি থানার ফিশারিঘাটে এ বন্দুকযুদ্ধে ঘটনা ঘটে।
কোতোয়ালি থানার ওসি মোহাম্মদ মহসীন জানান, সোমবার প্রাইভেটকারে এক তরুণীকে গণধষর্ণ করা হয়েছে মর্মে থানায় অভিযোগ আসে সাহাবুদ্দিন ও শ্যামল দেসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে।

এর ভিত্তিতে মঙ্গলাবার ভোরে নগরীর কোতোয়ালি থানার ফিশারিঘাট এলাকায় অভিযানে নামে পুলিশ।
এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে সাহাবুদ্দিন ও তার সহযোগীরা তাদের লক্ষ্য করে গুলি করে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে সাহাবুদ্দিনের গুলিবিদ্ধ মৃতদেহ পাওয়া যায়; গ্রেফতার হন শ্যামল দে নামে আরেক আসামি। এ সময় অন্যরা পালিয়ে যান। ঘটনাস্থল থেকে দুটি প্রাইভেটকার জব্দ করা হয়।
নিহত সাহাবুদ্দিন গণধর্ষণ মামলার আসামি। এ ঘটনায় তিন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। এ বিষয়ে পরে সংবাদ সম্মেলন করে বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানান ওসি মহসীন। সূত্র যুগান্তর

Loading...